1. admin@protidinshikhsha.com : protidinshiksha.com :
বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ০৪:২৯ পূর্বাহ্ন

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার বিষয়ে মন্ত্রণালয় যে তথ্য দিল

  • প্রকাশিত বুধবার, ২২ জুলাই, ২০২০
  • ৮৮৭ বার পড়া হয়েছে

শিক্ষা ডেস্কঃ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া হবে নাকি ছুটি আরও বাড়ানো হবে তা নিয়ে এখনও কোনও সিদ্ধান্ত নেয়নি শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

করোনাভাইরাস মহামারি শুরু হওয়ার পর গত ১৭ মার্চ থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। সরকারি সিদ্ধান্ত মোতাবেক ৬ আগস্ট পর্যন্ত বন্ধ থাকবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান।

মঙ্গলবার (২১ জুলাই) সন্ধ্যা পর্যন্ত এ বিষয়ে কোনও সিদ্ধান্ত নেয়নি বলে জানিয়েছেন মন্ত্রণালয়ের তথ্য ও জনসংযোগ কর্মকর্তা মোহাম্মদ আবুল খায়ের।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ও বিস্তার রোধ এবং শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তায় গত ১৭ মার্চ থেকে আগামী ৬ আগস্ট পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে।

এই পরিস্থিতির মধ্যে আগামী ৯ আগস্ট থেকে অনলাইনে এইচএসসি ভর্তির জন্য আবেদন আহ্বান করা হয়েছে।

দফায় দফায় ভর্তি প্রক্রিয়ায় আবেদন করার শেষ সময় ৮ সেপ্টেম্বর। আর ভর্তি শেষ করতে সময় লাগবে ১৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত।

ছুটির পর পরই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার বিষয়ে নতুন কোনও সিদ্ধান্তে যেতে পারেনি শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, ৬ আগস্টের আগে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনা করে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি বাড়ানোর প্রস্তাব পাঠানো বা খোলার বিষয়ে নির্দেশনা চাওয়া হবে।

মন্ত্রণালয়ের তথ্য ও জনসংযোগ কর্মকর্তা মোহাম্মদ আবুল খায়ের বলেন, ‘সরকারের উচ্চ পর্যায়ে আলোচনা না করে কোনও সিদ্ধান্তে যাবে না মন্ত্রণালয়।

তাছাড়া ৬ আগস্ট আসতে এখনও বেশ কিছুদিন সময় বাকি রয়েছে।

ঈদের পর বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে।

মন্ত্রণালয় ও আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় কমিটি জানিয়েছে, পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে বা পুরোপুরি অফিস আদালত গাড়ি ঘোড়া চলাচল শুরু হলে এইচএসসি পরীক্ষা নেওয়ার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হবে।

দুই সপ্তাহ সময় দিয়ে পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করা হবে জানান আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় কমিটির সভাপতি ও ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক মু. জিয়াউল হক।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
২০২০ প্রতিদিন শিক্ষা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় মাল্টিকেয়ার

প্রযুক্তি সহায়তায় মাল্টিকেয়ার